ঋণ শ্রেণিকরণ-প্রভিশনে কেন্দ্রিয় ব্যাংকের নতুন নির্দেশনা

কেন্দ্রিয় ব্যাংক
কেন্দ্রিয় ব্যাংক

বাংলাদেশ ব্যাংক ঋণ শ্রেণিকরণ ও ঋণের বিপরীতে প্রভিশন রাখায় নতুন শর্ত বেধে দিয়েছে। কটেজ, মাইক্রো, ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোক্তা (সিএমএসএমই) খাতে এ শর্ত প্রয়োজ্য হবে। এ নির্দেশনা কার্যকরে সব তফসিলি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে প্রজ্ঞাপনের কপি পাঠিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

বাংলাদেশ ব্যাংকের শর্তানুযায়ী, এ খাতে বিতরণকরা ঋণের কিস্তি ছয় মাস পরিশোধে ব্যর্থ হলে বা আদায় করা না গেলে ওই ঋণ নিম্নমানের খেলাপি হিসেবে চিহ্নিত করা হবে। অন্যদিকে ১৮ মাস পার হলে ওই ঋণ সন্দেহজনক মানের তালিকায় থাকবে। এটা ৩০ মাস পার হলে মন্দমানের ঋণের পরিণত হবে।

গতকাল মঙ্গলবার (২১ জুলাই) এসব বিষয়ে নির্দেশনা দিয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করে নতুন নির্দেশনা অনুসারে শ্রেণিকরা ঋণের নতুন প্রভিশন হারও নির্ধারণ করে দেয়া হয়েছে। এতে আরও সিএমএসএমই ঋণের কিস্তি ৬ মাস বকেয়া পড়লে তা খেলাপী বলা যাবে। তবে সন্দেহজনক মানের ঋণের জন্য ব্যাংকগুলোকে বাংলাদেশ ব্যাংকের কাছে ৫ শতাংশ হারে নিরাপত্তা সঞ্চিতি বা প্রভিশন রাখতে হবে।

অপরদিকে মন্দমানের ঋণের জন্য ২০ শতাংশ প্রভিশন সংরক্ষণ করতে হবে। তবে এ ঋণ ৩০ মাসের বেশি হলে এই শ্রেণির খেলাপি ঋণের জন্য ১০০ শতাংশ হারে প্রভিশন রাখতে হবে বাংলাদেশ ব্যাংকের কাছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here